তিন সেঞ্চুরির ম্যাচে ইংলিশদের হারালো আইরিশরা

নট আউট ডেস্ক
বুধবার, ০৫ আগষ্ট ২০২০, সকাল ৮:১১

ইংল্যান্ড-আয়ারল্যান্ড তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ম্যাচ যেন ফিরিয়ে নিয়ে গেলো ২০১১ বিশ্বকাপে। সেবার (২০১১) বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ৩২৮ রান তাড়া করে অবিশ্বাস্য জয় পেয়েছিলো আয়ারল্যান্ড। আর এদিন সাউদাম্পটনে ৩২৯ রান তাড়া করে ৭ উইকেটের দুর্দান্ত জয় তুলে নিয়ে তুলে নিলো আইরিশরা। যা ইংল্যান্ডের মাটিতে তাদের বিপক্ষে সর্বোচ্চ রান চেজ করে জয়। দুই দলে এই ম্যাচে রান করেছে মোট ৬৫৭।

এদিন প্রথমে ব্যাট করতে নেমে দলীয় পঞ্চাশের আগেই ইংলিশরা হারায় ৩ উইকেট। ইংলিশ অধিনায়ক মরগ্যানের ঝড়ো সেঞ্চুরি আর শেষ দিকে বোলার উইলির ফিফটির সুবাধে আইরিশদের ৩২৯ রানের বিশাল টার্গেট দেয় স্বাগতিক ইংল্যান্ড। মাত্র ৭৮ বলে সেঞ্চুরি করা মরগ্যানের ১০৬ রান এবং টম বান্টন ও ডেভিড উইলির হাফ সেঞ্চুরিতে ইংল্যান্ড ৪৯.৫ ওভারে সবকটি উইকেট হারিয়ে ৩২৮ রান করে।

জবাবে ৩২৯ রানের এই বিশাল টার্গেটে খেলতে নেমে পল স্টারলিংয়ের ১২৮ বলে ৯ চার ও ৬ ছক্কায় ১৪২ রান ও অধিনায়ক এন্ড্রু বালবার্নির ১১৩ রানের সুবাধে লক্ষ্যটা সহজ হয়ে যায় আইরিশদের জন্য। শেষ ওভারে জয়ের জন্য আইরিশদের প্রয়োজন ছিলো ৮ রানের। কেবিন ওব্রায়েন ও হ্যারি টেক্টর ১ বল বাকি থাকতেই দলকে জয়ের বন্দরে নিয়ে যান। প্রথম দুই ম্যাচ জিতে সিরিজ আগেই নিশ্চিত করেছিলো ইংল্যান্ড। এই ম্যাচ জিতে স্বান্তনার জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে আইরিশরা।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:
ইংল্যান্ড: ৩২৮/১০ (৪৯.৫)
মরগ্যান ১০৬, বেন্টন ৫৮, উইলি ৫১, কুরান ৩৮।
ক্রেগ ৩/৫৩।

আয়ারল্যান্ড: ৩২৯/৩ (৪৯.৫)
পল স্টারলিং ১৪২, বালবির্নি ১১৩

ম্যান অব দ্য ম্যাচ : পল স্টারলিং।
ম্যান অব দ্য সিরিজ : ডেভিড উইলি।

ফলাফল: ২-১ সিরিজ নিজেদের করে নিয়েছে ইংলিশরা।