ওল্ড ট্রাফোর্ড টেষ্টের তৃতীয় দিনে ১৪ উইকেটের পতন

নট আউট ডেস্ক
শনিবার, ০৮ আগষ্ট ২০২০, সকাল ১১:২৯

শান মাসুদের ব্যাক্তিগত দেড়শো পার করা ইনিংসে ভর করে প্রথম ইনিংসে ৩২৬ রান সংগ্রহের পর ইংলিশদের মাত্র ২১৯ রানেই অলআউট করে ১০৭ রানের লিড পায় সফরকারী পাকিস্তান। দ্বিতীয় ইনিংস ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই ইংলিশ পেসারদের তোপের মুখে পড়েছে পাকিস্তানি ব্যাটসম্যানরা। তৃতীয় দিন শেষে ১৩৭ রান তুলতেই ৮ উইকেট হারিয়েছে সফরকারীরা।

দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিংয়ে নেমে আগের ইনিংসে শতক হাঁকানো শান মাসুদ এবার ফিরেন শূন্য রানেই। এবারও শিকার হন স্টুয়ার্ট ব্রডের। এরপর আবিদ আলি – আজহার আলিরাও ফিরে যান দ্রুতই। বাবর বিদায় নেয় ৫ রান করেই। নিয়মিত বিরতিতে একের পর এক উইকেট হারাতে থাকে সফরকারী পাকিস্তান। ৩০ পার করতে  পারেননি কেউই। ব্রড- ওকসদের বোলিংয়ের সামনে দাঁড়াতেই পারেননি সফরকারীরা।

তৃতীয় দিন শেষে পাকিস্তান লিড পেয়েছে ২৪৪ রানের। তৃতীয় দিন শেষে অপরাজিত ইয়াসির শাহ ১৫ রানে আর মোহাম্মদ আব্বাস আছেন ০ রানে। ইংলিশদের হয়ে দ্বিতীয় ইনিংসে ২ টি করে উইকেট নিয়েছেন স্টুয়ার্ট ব্রড, বেন স্টোকস ও ক্রিস ওকস। এছাড়াও ডম বেস নিয়েছেন ১ টি উইকেট।

এর আগে ৩২৬ রানে পিছিয়ে থেকে প্রথম ইনিংসে দলীয় মাত্র ১২ রানের মাথায় ৩ উইকেট হারিয়ে বিপাকে পড়ে ইংল্যান্ড। চতুর্থ উইকেটে জো রুট এবং অলি পোপ ৫০ রানের জুটি গড়ে দলের প্রাথমিক বিপর্যয় সামাল দেওয়ার চেস্টা করেন। কিন্তু ৬২ রানের মাথায় অধিনায়ক রুটকে (১৪) মোহাম্মদ রিজওয়ানের হাতে ক্যাচ বানিয়ে ব্রেক থ্রু এনে দেন লেগ স্পিনার ইয়াসির শাহ।

এরপর পোপ এবং বাটলার ৬৫ রানের জুটি গড়ে ৬২ রান করে পোপ বিদায় নিলে আবারও ব্যাটিং বিপর্যয়ে পরে ইংল্যান্ড। শেষ দিকে পাক স্পিনারদের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি আর কোন ইংলিশ ব্যাটসম্যান। ২১৯ রানে শেষ হয় ইংলিশদের প্রথম ইনিংস।

ইংল্যান্ডের হয়ে সর্বোচ্চ ৬২ রান করেন পোপ। এছাড়া বাটলার ৩৮, ওকস ১৯, রুট করেন ১৪ রানে। শেষ দিকে ব্রডের ২৯ ও আর্চারের ১৬ রানের সুবাধে দলীয় ২০০ পার করে ইংল্যান্ড।

পাকিস্তানের হয়ে ৪ উইকেট নেন লেগ স্পিনার ইয়াসির শাহ। এছাড়া শাদাব খান ও মোহাম্মদ আব্বাস নেন ২টি করে উইকেট। শাহীন শাহ আফ্রিদি ও নাসিম শাহ নেন ১টি করে উইকেট।